Porjotonlipi
নাটোরের কাঁচাগোল্লা

নাটোরের কাঁচাগোল্লা

নাটোরের কাঁচাগোল্লা শুধু বাংলাদেশ নয় বিলেতের রাজপরিবার পর্যন্ত বিস্তৃত ছিল। গরুর দুধ থেকে প্রাপ্ত কাঁচা ছানা দিয়ে প্রস্তুত করার কারণে কাঁচাগোল্লা বলা হয়ে থাকে। যদিও এই মিষ্টির সূচনা নাটোরে তবে বাংলাদেশের বেশ কিছু জেলায়ও এটি পাওয়া যায়। 

নাটোরের বিখ্যাত কাঁচাগোল্লা

কলকাতা এবং নাটোর শহর একই সময় প্রতিষ্ঠিত হওয়ায় ও এই দুই শহরের মধ্যে যোগাযোগ থাকায় ভারত, ইংল্যান্ডসহ তৎকালীন বিভিন্ন রাষ্ট্রে নাটোরের কাঁচাগোল্লার কথা ছড়িয়ে পড়ে। এভাবেই কাঁচাগোল্লা আন্তর্জাতিকতা লাভ করে। 

নাটোরের কাঁচাগোল্লার ইতিহাস 

১৭৬০ সালে বাংলার দানশীলা শাসনকর্তা রানী ভবানীর রাজত্বকালে কাঁচাগোল্লার সুখ্যাতি দেশ-বিদেশে বিস্তার করতে থাকে। সেই সময় নাটোরে মিষ্টির দোকান ছিল খুবই কম। এসব দোকানে বিখ্যাত কাঁচাগোল্লা ছাড়াও অবাক সন্দেশ, রাঘবশাহী, চমচম,পানতোয়া এইসব মিষ্টি ছিল অন্যতম। তবে এর মধ্যে সবার শীর্ষে উঠে আসে কাঁচাগোল্লা। ফলে সে সময় রাজা-জমিদারদের মিষ্টিমুখ করতে ব্যবহার করা হতো এই বিখ্যাত কাঁচাগোল্লা। এমনকি বিলেতের রাজপরিবারেও এই কাঁচাগোল্লা যেত। আরো যেত ভারতবর্ষের সর্বত্র। সে সময় ঢোল বাজিয়ে জানানো হতো কাঁচাগোল্লা কথা।

কাঁচাগোল্লার চাহিদা বৃদ্ধির প্রেক্ষিতে মুধুসূদন পালের দোকানে প্রতিদিন তিন থেকে সাড়ে তিন মন ছানার কাঁচাগোল্লা তৈরী হতে লাগল। ১৮৪০ সালের দিকে দিঘাপতিয়ার রাজা প্রসন্ন নাথ রায়ের আমলে শ্রীকৃষ্ণের ঝুলন উৎসবের দিনে উপস্থিত ধর্ম পরায়ণ সকলকেই এক বেলচা করে কাঁচাগোল্লা বিতরণ করা হতো। সে সময় প্রতি সের কাঁচাগোল্লার মূল্য ছিল ৩ আনা।

কাঁচাগোল্লার প্রস্তুত পদ্ধতি 

প্রধানত কাঁচা গোল্লা দুই ধাপে তৈরি হয়। 

১ . দুধ থেকে ছানা তৈরি

২ . ছানা থেকে কাঁচাগোল্লা তৈরি

উপকরণের মধ্যে প্রয়োজনীয় ছানা, এলাচগুঁড়ো, চিনি, মাওয়া । 

কোথায় পাবেন কাঁচাগোল্লা

নাটোরের কিছু উল্লেখযোগ্য দোকান যেমন লালবাজারের মধুসূদন পালের দোকান, নীচা বাজারের কুণ্ডু মিষ্টান্ন ভাণ্ডার, অনুকূল দধি ও মিষ্টান্ন ভাণ্ডার, স্টেশন বাজারের নয়ন ও সকাল-সন্ধ্যা দোকানে মিলবে ভালো কাঁচাগোল্লা। তবে বর্তমানে কাঁচাগোল্লা বিক্রিতে সব থেক শীর্ষে রয়েছে মৌচাক মিষ্টান্ন ভাণ্ডার।

কাঁচাগোল্লার মূল্য 

১৮৪০ সালের দিকে প্রতি সের কাঁচাগোল্লার মূল্য ছিল ৩ আনা। কাঁচাগোল্লার বর্তমান মূল্য ৪০০ টাকা কেজি। এক সময় নাটোরের কাঁচাগোল্লা বিক্রি হয়েছে ১৮০ থেকে ১৯০ টাকায়। দুধের দাম বৃদ্ধিতে মিষ্টির দাম ও বেড়ে গিয়েছে ।

 

 

তাসনিয়া মাহবুব তৈশী

1 comment